"বেটি পড়াও, বেটি বাঁচাও?" মোদীর হাত থেকে পুরস্কার নেওয়া ছাত্রী এবারগণধর্ষণের শিকার।

১০দিক২৪ ব্যুরোঃ সিবিএসই-তে শীর্ষ স্থান অধিকার করেছিল মেয়ে, নিয়েছিল স্বয়ং মোদীর হাত থেকে পুরষ্কার। আর সেই মেয়ের ই গণধর্ষণের শিকার। তার পর আবার সেই মেয়ের ই মামলা নিতে গড়িমসির অভিযোগ ওঠেছে স্থানীয় পুলিশের বিরুদ্ধে। এমন ই এক ঘটনার সাক্ষী থাকলো হরিয়ানা।

ভারতের হরিয়ানা রাজ্যে মাধ্যমিক পর্যায়ে কেন্দ্রীয় বোর্ডে শীর্ষ স্থানধারী এক ছাত্রী তাঁকে গণধর্ষণ করা হয় বলে জানা যাচ্ছে। বছর ১৯ এর ঐ ছাত্রী কে গণধর্ষণ করে তাঁর গ্রামের ই এক দল যুবক।

জানা যাচ্ছে, কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের এই ছাত্রী রিওয়ারিতে তার গ্রামের কাছেই একটি কোচিং সেন্টার থেকে ফিরছিল। সে সময় তিন যুবক একটি গাড়িতে করে এসে দাঁড়ায় এবং ছাত্রীটিকে টেনে হিঁচড়ে ক্ষেতের মধ্যে নিয়ে যায়। সেখানেই গণধর্ষণ করা হয় তাকে। তিন যুবক যখন ছাত্রীটিকে ক্ষেতে টেনে নিয়ে যায়, তখন সেখানে উপস্থিত অন্যান্য পুরুষরাও তাকে ধর্ষণ করে। অভিযোগকারীর দাবি, ধর্ষকরা সকলেই তার গ্রামের।

ঐ পরিবার সংবাদ মাধ্যম কে জানান, "আমার মেয়ে সিবিএসই-তে শীর্ষ স্থান অধিকার করেছিল, স্বয়ং মোদীজির হাত থেকেও পুরস্কার নিয়েছে। মোদীজি বলেন, বেটি পড়াও, বেটি বাঁচাও। কিন্তু, তা আর কীভাবে সম্ভব? আমি বিচার চাই, পুলিশ এখনও কোনও পদক্ষেপ করেনি।"

পুলিশ কেবল একটা এফআইআর নিয়েই দায় সেরেছে। যে মেয়ে দেশের নাম উজ্জ্বল করলো, আজ সেই মেয়ে কেই এমন ঘটনার শিকার হতে হল, এতেই ক্ষোভ জন্মাচ্ছে মানুষের মনে। এই ঘটনায় স্বাভাবিক ভাবেই মোদী সরকারের সাথে সাথে বিজেপির ও মুখ পুড়ল বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহল।