কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নিতিন গডকরী কি খুন করতে চাইছেন মোদী কে?! চাঞ্চল্যকর খবর।

কেন্দ্রীয় গোয়েন্দারা প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তা সংক্রান্ত বৈঠকে মোদীর ওপর আক্রমণের সতর্কবার্তা দিয়েছেন । স্বাধীনতা দিবসের দিন লালকেল্লায় প্রধানমন্ত্রী যখন ভাষণ দেবেন, তখনই হতে পারে ড্রোন হামলা, এমনটাই পরিকল্পনা করেছে জঙ্গিরা। জইশ-এ-মহম্মদ, লস্কর-এ-তৈবার মতো জঙ্গিগোষ্ঠী যৌথভাবে এই হামলা চালাবার পরিকল্পনা করেছে। আরো একটি চাঞ্চল্যকর দাবী যে, পাক গুপ্তচর সংস্থা ISIও সাহায্য করবে এই জঙ্গিগোষ্ঠীগুলিকে। এমনটাই জানাচ্ছেন কেন্দ্রীয় গোয়েন্দারা ।

আর এই ঘটনা সামনে আসার পরেই এক চাঞ্চল্য কর খবর সামনে আনেন জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংসদের প্রাক্তন সভানেত্রী শেহলা রশিদ। শেহেলা জানান কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নিতিন গডকরী, প্রধানমন্ত্রীকে হত্যার ষড়যন্ত্রের সঙ্গে যুক্ত। এই ঘটনায় পাল্টা শেহেলার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থার গ্রহণের কথা জানিয়ে দিয়েছেন গডকরীও।

শেহলা ট্যুইট করেছেন, দেখেশুনে মনে হচ্ছে, আরএসএস, গডকরীই মোদীকে মেরে তার দায় মুসলিম, কমিউনিস্ট ঘাড়ে ঠেলে দিয়ে তারপর রাজীব গাঁধীর কায়দায় মুসলিমদের অপর আক্রমনের ছক কষছে।







এই তীব্র প্রতিক্রিয়া দিয়ে ক্ষুব্ধ কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বলেছেন, যে সমাজবিরোধীরা এমন অবিশ্বাস্য মন্তব্য করছে, প্রধানমন্ত্রীকে খুনের হুমকির ব্যাপারে ব্যক্তিগত আক্রোশ আমার ওপর দিয়ে মেটাতে চাইছে, তাদের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ গ্রহণ করব।

কংগ্রেস নেতা সঞ্জয় নিরুপম এর আগেই জানিয়ে ছিলেন – “যখনই নরেন্দ্র মোদির জনপ্রিয়তা মানুষের কাছে কমেছে তখনই তিনি এরম বলে থাকেন” । তবে ঘটনা যেদিকেই যাক, জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংসদের প্রাক্তন সভানেত্রীর এইরকম অভিযোগ রাজনৈতিক মহলে যথেষ্ট চাঞ্চল্য সৃষ্টি করেছে।