ফের ভাড়া বাড়ছে ট্রেনের।

আগামী দিনে বিমানবন্দরের মতো স্টেশনেও ‘ইউজার ফি’ বা ব্যবহারের খরচ হিসেবে বাড়তি অর্থ দিতে হবে যাত্রীক

১০ দিক ২৪ঃ ভাড়া বাড়ছে ট্রেনের টিকিটের। মোদি সরকারের আমলে ভাড়া বাড়বে ট্রেনের। প্রচুর বেশি ভাড়া বাড়তে পারে। রেলের এই বিষয়ের পর শুরু রাজনৈতিক চাপানউতোর। অনেকেই মোদি সরকারকে কটাক্ষ করেছে। 
 
রেল  জানিয়েছে, আগামী দিনে বিমানবন্দরের মতো স্টেশনেও ‘ইউজার ফি’ বা ব্যবহারের খরচ হিসেবে বাড়তি অর্থ দিতে হবে যাত্রীকে। মোদি সরকার গত ডিসেম্বরে ১০৯টি রুট বেসরকারি অপারেটর-দের হাতে তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় মোদী সরকার। ঠিক হয়, ওই রুটগুলিতে ১৫১টি ট্রেন চালানো হবে। যেগুলির  শুধু মাত্র পরিচালনব্যবস্থা রেলে হাতে থাকবে। 

 রেল বোর্ডের চেয়ারম্যান বিনোদ কুমার যাদব বলেন, ‘‘এ ক্ষেত্রে ভাড়া স্থির করার ক্ষমতা থাকবে বেসরকারি সংস্থার হাতে। তবে ওই রুটে বেসরকারি বাস ও বিমানের ভাড়া পর্যালোচনা করেই রেলের ভাড়া চূড়ান্ত করা হবে।’’ ট্রেন ভাড়া বাড়বে এই নিয়ে রেল বলছে, ‘‘ওই ট্রেনগুলিতে উন্নত মানের পরিষেবা দেওয়া হবে। দ্রুত গতি সম্পন্ন হওয়ায় সেগুলি কম সময়ে গন্তব্যে পৌঁছবে। তা ছাড়া বেসরকারি সংস্থাগুলি রেলকে চুক্তির বাৎসরিক অর্থ মেটাতে বাধ্য থাকবে। 

কিন্তু কেন বেসরকারি হাতে দিচ্ছে মোদি। এই কোনো উত্তর দেয়নি মোদি সরকার। ভাড়া বাড়া নিয়ে কংগ্রেস পথে নেমেছে। কটাক্ষ করেছে তারা।