"বিজেপির রাজনৈতিক প্রতিহিংসার " দাবি তুললেন মাননীয় মুখ্যমন্ত্রী মমতাবন্দোপাধ্যায়।

১০দিক২৪, নিজেস্ব প্রতিনিধি সায়ক করঃ চুক্তি করে অগ্রিম মিটয়ে দেওয়া সত্তেও আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের প্রচারের জন্য হেলিকাপ্টার পাচ্ছে না তৃনমূল সরকার, এমন টাই জানা গেছে।ধর্না মঞ্চের সামনে থেকে মুখ্যমন্ত্রী এই তথ্য সামনে এনেছেন, সাথে একে" বিজেপির রাজনৈতিক প্রতিহিংসা" বলে উল্লেখ করেন,এবং আর ও বলেন "যে সংস্থা র সাথে চুক্তি হয়েছিল তারা বিজেপির চাপেই অগ্রিম অর্থ ফেরত দিতে বাধ্য হচ্ছে

মমতা জানান "লোক সভা ভোটের প্রচারের জন্য একটি সংস্থার থেকে ভাড়ায় হেলিকাপ্টার নিতে ১৫ ই জানুয়ারি আমরা চুক্তিবদ্ধ হই, তাদের অগ্রিম টাকাও দিয়ে দেওয়া হয়."




তিনি আর ও দাবি করেছেন সব ই ঠিক ছিল, তবে ১৯ এ জানুয়ারি ব্রিগেড সভা এবং তাকে ঘিরে বিরোধীদের এক জোট হওয়াতে শুরু হয় এই প্রতিহিংসার আগুনের ছড়িয়ে পড়া, গত ১ লা ফেব্রুয়ারি সংশ্লিষ্ট সংস্থা অগ্রিম বাবদ দেওয়া অর্থ ফেরত দিয়ে দেয়, চাপ এ পড়েই যে তারা এটা করেছে তা স্পষ্ট।।

সাপ-লুডোর রাজনীতিতে তবে কি শাসকের প্রতিহিংসা য় তৃনমূল সরকারের গুটি ভ্যানিশ হয়ে গেল?? নজর থাকবে সেই দিকেই, যদিও এহ্মেত্রে মোদী সরকারের কোনো প্রতিক্রিয়া মেলেনি।।