গোঘাটের অসুস্থ সিপিএম নেতাকে 'মুখে জল দিয়ে' প্রহার। অভিযুক্ত তৃণমূল।

১০দিক২৪ ব্যুরোঃ ফের আক্রান্ত হতে হল সিপিএম এর নেতাকে। তাকে দফায় দফায় নানান জায়গায় মারধোর করা হয়। এমনকী টাকা পয়সার দাবীতে তাকে পার্টিঅফিসের ভেতর ঢুকিয়ে মারধোর করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। অভিযোগের তীর তৃণমূলের দিকে। ক্রমাগত চলতে থাকা মারধোরে এই সিপিএম নেতা অসুস্থ হয়ে পড়লে তার মুখে জল দিয়ে তাকে আবার মারধোর করা হয়। তাঁর সারা শরীরেই গুরুতর চোট রয়েছে। খবর পেয়ে গোঘাট থানার পুলিশ তাকে উদ্ধার করে। বর্তমানে তিনি কামারপুকুর ব্লক গ্রামীণ হাসপাতালে চিকিৎসাধীণ।

আক্রান্ত এই সিপিএম নেতা হলেন নিতাই চানক।পার্টিকর্মী হিসেবে এলাকায় তাঁর যথেষ্ট পরিচিতি আছে। তিনি জানিয়েছেন, রবিবার বাড়ীর সবাই মাঠে কাজ করতে যাওয়ায় বাড়ীতে কেউ ছিলোনা। তিনি একাই ছিলেন। সে সময়ই মোটরবাইকে প্রায় সাত আট জনের একটি দল এসে তাকে বাড়ী থেকে তুলে নিয়ে যায়। এদের প্রত্যেকেই তৃণমূলের কর্মী বলেই জানিয়েছেন তিনি। গ্রামের নানান জায়গায় তাকে ফেলে মারধোর করা হয়। লোহার রড, বাঁশ, লাঠি দিয়ে মারা হয় বলে অভিযোগ।

এরপর বদনগঞ্জের ফুলেশ্বর পার্টিঅফিসে ঢুকিয়ে টাকাপয়সার দাবী করে ফের মারধোর করা হয়। মারের চোটে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়লে তাঁর মুখে জল দিয়ে আবার মারা শুরু করে দুষ্কৃতী বাহিনী। প্রহৃত সিপিএম নেতা নিতাই চানকের কথায় তারা বলে 'আমাদের অনেক ক্ষতি হয়েছে। তার ক্ষতি পূরণ দিতে হবে। টাকা পয়সা না দিলে ছাড় নেই।' যদিও তৃণমূলের পক্ষ থেকে স্থানীয় নেতা স্বপন সাহানা এই ঘটনার কথা সম্পূর্ন অস্বীকার করেছেন।