বিজেপি তৃণমূলের বিরুদ্ধে অধিকার রক্ষার #AdhikarJatra. জেনে নিন কি কি থাকছেকর্মসূচীতে।

১০দিক২৪ ব্যুরোঃ গত দুদিন আগেই ‘অধিকার যাত্রা’র কর্মসূচি ঘোষণা করে বেঙ্গল প্ল্যাটফর্ম অব মাস অর্গানাইজেশনস বা বি পি এম ও। জানা যাচ্ছে, প্রায় ২৪ দিন ধরে ৭৮হাজার বুথে, ৫০হাজার কিলোমিটার হাঁটবে, ৭লক্ষ মানুষ। যা অতীতে হয়নি। জেনে নিন BPMO র এই অধিকার যাত্রা কেন এবং কি ভাবে হবে। BPMO র পক্ষ থেকে এই কর্মসূচী জানানো হয়েছে আমাদের সংবাদ মাধ্যমে, সেই কর্মসূচী সম্পূর্ণ আপনাদের সামনে তুলে ধরছি আমরা।

 

============
১০ সেপ্টেম্বর শুরু
৩ অক্টোবর কলকাতায় কেন্দ্রীয় সমাবেশ
============


• আক্রান্ত সমস্ত ধরণের অধিকার
• শ্রম আইন মান্য করা হচ্ছে না, আক্রান্ত শ্রমিকের অধিকার
• কৃষকরা ফসলের ন্যায্য দাম পাচ্ছেন না, আক্রান্ত কৃষকের অধিকার
• মহিলারা নিরাপদে চলাফেরাও করতে পারছেন না, বিপন্ন নারীদের অধিকার
• যুবরা কাজের সুযোগ পাচ্ছে না, ছাত্ররা শিক্ষার সুযোগ থেকে বঞ্চিত হচ্ছে
• মানুষ তাঁর নাগরিক অধিকার প্রয়োগ করতে পারছেন না, আক্রান্ত গণতান্ত্রিক অধিকার
 আক্রান্ত সব মানুষের অধিকার

• তাই ২৪দিন ধরে রাজ্যজুড়ে ‘অধিকার যাত্রা’ হবে বেঙ্গল প্ল্যাটফর্ম অব মাস অর্গানাইজেশনস্‌ (বি পি এম ও)-র উদ্যোগে
• শ্রমিক-কৃষক-খেতমজুর-ছাত্র-যুব-মহিলাসহ সমাজের সব অংশের জ্বলন্ত দাবিগুলি নিয়ে আগামী ১০সেপ্টেম্বর থেকে এই কর্মসূচি শুরু হবে। কর্মসূচির শেষে ৩রা অক্টোবর কলকাতায় কেন্দ্রীয় সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে।
• বি পি এম ও-র পক্ষ থেকে ‘অধিকার যাত্রা’র কর্মসূচি ঘোষণা করে রাজ্যের সব মানুষের কাছে এতে শামিল হওয়ার আহবান জানানো হয়েছে।
• বি পি এম ও-র এবারের পদযাত্রার কর্মসূচি এত বড়, এত বেশি এলাকা এবং বেশি সংখ্যক মানুষকে যুক্ত করে অনুষ্ঠিত হবে যা আগে কখনো হয়নি।
• আগের বি পি এম ও পদযাত্রায় ছোঁয়া হয়েছিল ৩৫ হাজার বুথ এলাকা। এবার লক্ষ্য রাজ্যের ৭৭,২৪৭টি বুথই
• গতবার মোট ২৫হাজার কিলোমিটার পথ হেঁটেছিলেন মানুষ, এবারে অতিক্রম করা হবে মোট ৫০হাজার কিলোমিটার
• অংশ নেবেন প্রায় ৭লক্ষ মানুষ
• কেন্দ্রীয়ভাবে ১০-১২টি পদযাত্রার কর্মসূচি চূড়ান্ত হয়েছে
• এর বাইরে প্রতিটি জেলায় প্রতি বুথ ছুঁয়ে পদযাত্রার পরিকল্পনা চূড়ান্ত হবে ২৫শে আগস্টের মধ্যে

• কোনও বুথ বাদ যাবে না, গতবারে যাওয়া যায়নি এবার সেই সব বুথে যেতেই হবে
• আদিবাসী ও লোকশিল্পীরা সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান করতে করতে এবং দাবি প্রচার করতে করতে পদযাত্রা যাবে
• সর্বভারতীয় স্তরে ‘জন একতা জন অধিকার আন্দোলন’ (জেজা) মঞ্চে বহু সংগঠন সর্বভারতীয় দাবি নিয়ে আন্দোলন করছে। সেই সব দাবিগুলির এবং রাজ্যের দাবিগুলি নিয়ে বি পি এম ও লড়ছে। এবার তার মধ্য থেকে ৮দফা দাবি নিয়ে ‘অধিকার যাত্রা’র পরিকল্পনা করা হয়েছে। কর্মসূচির এই নাম দেওয়া হয়েছে কারণ মানুষের অধিকারই এখন সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত।
• রাজ্যের প্রতিটি ব্লকে এবং পৌরসভাতে ‘অধিকার যাত্রা’ কর্মসূচিতে জমায়েত করে ডেপুটেশন দেওয়া হবে
• ডেপুটেশন দেওয়া হবে প্রতিটি জেলার জেলাশাসকের কাছেও

 

 

বি পি এম ও-র ৮দফা মূল দাবি:


• স্বামীনাথন কমিশনের সুপারিশ অনুসারে রাজ্য ও কেন্দ্রীয় সরকারকে ফসলের উৎপাদন ব্যয়ের দেড়গুণ দামে ফসল কিনতে হবে
• সবার হাতে কাজ ও কমপক্ষে ১৮হাজার টাকা ন্যূনতম বেতন ও ন্যূনতম ৩হাজার টাকা পেনশন দিতে হবে। সমস্ত শ্রমিক বিরোধী আইনকে বাতিল করতে হবে
• আসামে সমস্ত ভারতীয়ের নাম নাগরিক হিসাবে অন্তর্ভুক্ত করতে হবে
• সমস্ত ধরনের মৌলবাদী ও সাম্প্রদায়িকতাবাদী কার্যকলাপ, দলিত ও আদিবাসীদের ওপর অত্যাচার অবিলম্বে বন্ধ করতে হবে
• আদিবাসীদের জল–জমি–জঙ্গলের অধিকার ফিরিয়ে দিতে হবে। ছাত্রাবাস ও স্টাইপেন্ড চালু করতে হবে
• নারীর নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে হবে। আইনসভায় মহিলা প্রতিনিধিত্ব অন্তত এক তৃতীয়াংশ করতে হবে
• সারদা–নারদ, রাফাল কেলেঙ্কারির নায়ক এবং ব্যাঙ্কের টাকা লুট, কর্মসংস্থানকে কেন্দ্র করে দুর্নীতির জন্য দায়ী ব্যক্তিদের শাস্তি দিতে হবে
• শিক্ষাক্ষেত্রে নৈরাজ্য ও দুর্নীতি বন্ধ করতে হবে, শিক্ষার খরচ কমাতে হবে
**কেন্দ্রীয় দাবিগুলির সঙ্গে যুক্ত হবে স্থানীয় আদায়যোগ্য দাবিগুলি

 

 

বিস্তারিত কর্মসূচি:


• কোচবিহার থেকে ১০ সেপ্টেম্বর অধিকার যাত্রা শুরু হবে, উদ্বোধন করবেন ‘জন একতা জন অধিকার আন্দোলন’-এর যুগ্ম আহবায়ক হান্নান মোল্লা
• কোচবিহার থেকে পদযাত্রা শিলিগুড়িতে এসে শেষ হবে, শিলিগুড়িতে ১৬ সেপ্টেম্বর কেন্দ্রীয় জনসভা হবে। শিলিগুড়ির কর্মসূচিতে কোচবিহার, আলিপুরদুয়ার, জলপাইগুড়ি, দার্জিলিঙ, এবং ইসলামপুর মহকুমা থাকবে
• মালদহের কর্মসূচিতে থাকবে মালদহ, দক্ষিণ দিনাজপুর ও উত্তর দিনাজপুর। মালদহে ২অক্টোবর জনসভা হবে
• ফরাক্কা থেকে কলকাতা পদযাত্রার উদ্বোধনী জনসভা হবে ১৪ সেপ্টেম্বর, উদ্বোধন করবেন ইউ টি ইউ সি-র সাধারণ সম্পাদক অশোক ঘোষ
• ২৩ সেপ্টেম্বর আসানসোল থেকে কলকাতা পদযাত্রার উদ্বোধন করবেন ‘জন একতা জন অধিকার আন্দোলন’-এর যুগ্ম আহবায়ক অমরজিৎ কাউর
• ২২ সেপ্টেম্বর পশ্চিম বর্ধমান থেকে পদযাত্রার উদ্বোধন করবেন সারা ভারত অগ্রগামী কৃষকসভার সাধারণ সম্পাদক হাফিজ আলম সাইরানি
• ২৬সেপ্টেম্বর হলদিয়া থেকে পদযাত্রার উদ্বোধন করবেন এ আই সি সি টি ইউ-র সাধারণ সম্পাদক রাজীব ডিমলি
• ১৪ সেপ্টেম্বর পুরুলিয়া থেকে পদযাত্রার সূচনা করবেন বি পি এম ও-র আহ্বায়ক শ্যামল চক্রবর্তী
• ৩ অক্টোবর সব পদযাত্রা এসে মিলবে মিলবে কলকাতায়, কেন্দ্রীয় সমাবেশে।। (ছবি কৃতজ্ঞতা, CPIM রাজ্য ফেসবুক পেজ)