আবার দল দবদলের ছায়া বঙ্গ বিজেপিতে । BJP West Bengal

Published on

বঙ্গে বিজেপি বেশ বিপাকে। মূলত বিধানসভা ভোটের পর থেকেই বঙ্গ বিজেপির (BJP West Bengal) জন্য যেন এই বাক্যটিই ভবিতব্য হয়ে গিয়েছে। দলত্যাগের জেরে জেরবার হয়ে গিয়েছে বিজেপি। যেসব নেতারা ভোট সামনে রেখে তৃণমূল থেকে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন, এবার তারাই সদলবলে ফিরছেন ঘরে। যার নবতম সংযোজন অর্জুন সিং। তালিকায় নাম রয়েছে আরো তিন হেভিওয়েটের।

বঙ্গ বিজেপি BJP West Bengal

ভোটে আশানুরূপ ফল না আশায় অনেকেই ছেড়েছেন বিজেপি। বর্তমানে তিনজন কে নিয়ে জোর জল্পনা চলছে। এই তিন নেতা হলেন সৌমিত্র খাঁ, লকেট চট্টোপাধ্যায়অনুপম হাজরা। এর মধ্যে সৌমিত্র খাঁ বরাবরের বিতর্কিত ব্যক্তি। বর্তমানে এই নেতা বিষ্ণুপুরের সাংসদ ও রাজ্য বিজেপির সহ সভাপতি। এই দলবদল ও তৃণমূল-বিজেপি টানাপোড়েনে ঘর ও ভেঙেছে সৌমিত্রের। স্ত্রী সুজাতা বিজেপিতে কাঙ্খিত ‘সম্মান’ না পেয়ে যোগ দিয়েছিলেন তৃণমূলে। এই মতের অমিল শেষমেষ গড়ায় বিবাহ বিচ্ছেদ অবধিও। ঘর ভাঙার জন্য প্রকাশ্যেই তৃণমূলকে দায়ী করে ছিলেন সাংসদ। তারপরেও এহেন রটনায় সৌমিত্র স্পষ্ট জানিয়েছেন তৃণমূলে যাচ্ছেন না তিনি। কারণ তার আগের যে অভিযোগ ছিল তা এখনো বর্তমান। যোগ্য সম্মান তাকে কোনোদিন ই দিতে পারবে না তৃনমূল নেতৃত্ব। পাশাপাশি দলত্যাগ না করার জোরালো কারণ হিসেবে তিনি তুলে এনেছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সাথে পুরানো তিক্ততার প্রসঙ্গও।

আরও পড়ুন রাজ্যের খবর

পরবর্তী যাঁর নাম উঠে আসছে তাঁর ঘটনাক্রম একটু আলাদা। তিনি ঠিক দলত্যাগী নন। বরং দল ই ত্যাগ করেছিল তাকে। বলা হচ্ছে অনুপম হাজরার কথা। দলবিরোধী কথা বলায় তৃণমূল থেকে বহিস্কার করা হয় অনুপম কে। এরপর ই তিনি যোগ দ্যান বিজেপিতে। তবে নিজের বক্তব্য রাখার ব্যাপারে একই ধরা তিনি বজায় রেখেছে বিজেপির ক্ষেত্রেও। মাঝেমাঝেই প্রকাশ্যে দলের কড়া সমালোচনা করতে দেখা যায় তাকে। তবে দলবদলের প্রসঙ্গে স্পষ্ট জানিয়েছেন কোনো প্রশ্নই ওঠেনা। অনুপম আছেন বিজেপিতেই।

এই প্রসঙ্গে সবথেকে গুরুত্বপূর্ন ও আলোচিত নাম হলো লকেট চট্টোপাধ্যায়ের। হুগলির বর্তমান সাংসদ তিনি (BJP West Bengal)। বহুদিন ধরেই নিস্ক্রিয় দলীয় কর্মসূচিতে। দেখা যায়নি হুগলিতেও। তাই দলবদলের বিতর্ক বেশ চেপে বসেছিল। আবার দলে তিনি পরিচিত ছিলেন বাবুল ঘনিষ্ঠ বলে। সেই বাবুল ও বর্তমানে ‘দিদির সৈনিক’। কমিটি থেকে বাদ পড়া জয়প্রকাশ মজুমদার, সায়ন্তন বসু দের পাশেও দাঁড়ান লকেট। যা আরো জল্পনা উস্কে দেয়। তবে এবার একটু একটু করে সক্রিয় হচ্ছেন তিনি। দায়িত্ব পেয়েছিলেন উত্তরাখন্ড নির্বাচনের ও। দলবদলের প্রসঙ্গে জানান বিজেপির মতো সম্মান তাকে কোনো দল দিতে পাবে না। তাই দলবদলের প্রশ্নই নেই।

তবে তাতে চিঁড়ে ভিজছেনা। কারণ এযাবৎ কালে যারাই বিজেপি (BJP West Bengal) ছেড়ে তৃণমূলে গিয়েছেন, তা সে মুকুল রায় হোক বা অর্জুন সিং সবার মুখেই ছিল এক রা। আর তারপরেই তারা ঝাঁপ দিয়েছেন পদ্ম থেকে ঘাসফুলে। তাই মুখে যতই বলুন আপাতত কপালের ভাঁজ কমছে না বঙ্গ বিজেপির।

Latest articles

রাজ্যপাল Jagdeep Dhankhar এর প্রভাব কে খর্ব করতে উদ্যোগী রাজ্যসরকার।

নানান জায়গায় রাজ্যপালের প্রভাব কে খর্ব করার জন্যই এখন উঠেপড়ে লেগেছে রাজ্যসরকার। পশ্চিমবঙ্গে রাজ্য...