এবার বিজেপির ঘুম কাড়ল মায়াবতী-অখিলেশ। চাপে থাকল কংগ্রেস ও।

১০দিক২৪ ব্যুরোঃ এবার লোকসভা ভোটের আগেই চাপ বাড়ল বিজেপি শিবিরের। সামনের লোকসভা ভোটের আগেই পরস্পর বিরোধিতা ছেড়ে মোদী কে হারাতে, হাতে হাত মেলাল বহুজন সমাজবাদী পার্টির (বিএসপি) প্রধান মায়াবতী ও সমাজবাদী পার্টির (এসপি) অখিলেশ যাদব।

তবে কংগ্রেসের পাশে থেকে কংগ্রেস কে সুবিধা পাইয়ে দেবার কথা নাকজ করে দিয়েছেন দুজনেই। বহুজন সমাজবাদী পার্টির প্রধান মায়াবতী জানান, "আমাদের অভিজ্ঞতা বলছে, কংগ্রেস কখনো আমাদের দিকে ভোট দেয় না। হতে পারে, এটি কংগ্রেসের একটি ষড়যন্ত্র। এভাবেই তারা বিজেপির দিকে ভোট পাঠিয়ে দেয়। আমরা এর আগে কংগ্রেসের দিকে ভোট পাঠিয়েছি, কিন্তু তারা এমনটা করেনি। ১৯৯৬ সালে আমাদের এই অভিজ্ঞতা হয়েছে। ২০১৭ সালে সমাজবাদী পার্টিরও একই অভিজ্ঞতা হয়েছে।"




মায়াবতীর কথায়, কংগ্রেসের সঙ্গে জোট বেঁধে রাজনৈতিক লাভ তারা পান না। কিন্তু বহুজন সমাজবাদী পার্টি এবং সমাজবাদী পার্টি জোটের মাধ্যমে ভোটে নেমে লাভবান হয়েছেন। তাই এই জোট কেই এগিয়ে নিয়ে জেতে চান তারা। অন্য দিকে, অখিলেশ যাদব বলেছেন, "আমি আমার কর্মীদের বলতে চাই, মায়াবতীকে অপমান করলে তাতে আমাকেও অপমান করা হবে।"

কটি আসনে লড়বে এই জোট? আগামী নির্বাচনে ৮০টি আসনের মধ্যে ৭৬টি আসনে তারা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে। এর মধ্যে ৩৮টি করে আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে বহুজন সমাজবাদী পার্টি ও সমাজবাদী পার্টি। কংগ্রেসকে ছেড়ে দেওয়া হবে মোটে ২টি আসন। তবে কংগ্রেস কে সুবিধা পাইয়ে দেওয়া নয়। নিজেদের শক্তিশালী করতেই পথে নামছেন তারা। এই জোটের মূল লক্ষ্য মোদী এবং শাহ জুটিকে হারানো। ভোট পরবর্তীতেই ভাবা হবে কংগ্রেসের হাত ধরবে কিনা এই জোট। এই নতুন জোটে এক দিকে যেমন মোদী সরকারের ঘুম উড়ল, ঠিক একই রকম ভাবে চাপ বজায় থাকল কংগ্রেসের ওপরেও।