রাজ্যের নাগড়াকাটায় ছেলেধরা সন্দেহে পিটিয়ে খুন।

১০ দিক ২৪ ব্যুরো : ছেলেধরা মনে করে পিটিয়ে মারা ঘটনা ঘটেছে।ভারতের অন্য  রাজ্য নয়। এরাজ্যে এই ঘটনা ঘটেছে।উত্তর প্রদেশ, মধ্যপ্রদেশের পর পশ্চিমবঙ্গেও ছেলেধরা সন্দেহে দল বেঁধে পিটিয়ে মারার ঘটনা ঘটল। সোমবার সকাল ৯টা নাগাদ নাগরাকাটার সুখানীবস্তি এলাকায় এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে খুন করল এলাকাবাসী।  বিষয়ে মৃতের পরিচয় এখনও পাওয়া যায়নি। ছেলেধরা নিয়ে গুজব হয়েছে ।কয়েকদিন ধরেই নাগরাকাটা এলাকায় ছেলে ধরার গুজব ছড়িয়ে পড়ে। সেই গুজবের জেরে এই ব্যক্তিকে নৃশংস ভাবে দল বেঁধে পিটিয়ে খুন করা হলো। 

পুলিশ জানিয়েছে,  ওই ঘটনায় নিহত যুবক ছিলেন বহুরূপী।  যুবক বিভিন্ন রুপে সমগ্র এলাকা ঘুরে বেড়াতেন নানান পোশাকে। তার পেশা ছিলো। এই ভাবেই উপার্জন করতেন তিনি। ছেলেধরা গুজবের জেরে সোমবার প্রকাশ্যে ওই ব্যক্তিকে পিটিয়ে খুন করল উন্মত্ত জনতা।কিন্তু কেউ কেউ  জানিয়েছেন তিনি মানসিক ভারসাম্যহীন ছিল । বাচ্চাদের ভুলিয়ে নিয়ে যেতে এসেছে স্রেফ এই সন্দেহের বশে তাঁকে দল বেঁধে পিটিয়ে মাথা থেঁতলে খুন করা হয়। 

স্থানীয় পুলিশ জানিয়েছে, কেউ বলতে পারবে না, ‘ছেলেধরা’ কাউকে ধরে নিয়ে গেছে। উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবে গুজব ছড়িয়ে হিংসার বাতাবরণ তৈরি করছে এলাকায় দাবি পুলিশের।কিন্তু পুলিশ কেন বাধা দিতে পারছে না এই বিষয়ে প্রশ্ন উঠছে।পুলিশের কি বেশি গাফিলতি রয়ে গেছে প্রশ্ন রয়ে গেল।